জেলা প্রশাসক মনীষ চাকমা’র পরিদর্শন হবিগঞ্জে খোয়াই নদীর পানি ১১০ সেন্টিমিটার উপর...

জেলা প্রশাসক মনীষ চাকমা’র পরিদর্শন হবিগঞ্জে খোয়াই নদীর পানি ১১০ সেন্টিমিটার উপর দিয়ে প্রবাহিত

আখলাছ আহমেদ প্রিয়, হবিগঞ্জ ॥  অবিরাম বৃষ্টি পাহাড়ি ঢল ও উজান থেকে নেমে আসা পানিতে খোয়াই নদীর পানি বিপদসীমার উপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে। গত বৃহস্পতিবার দিবাগত মধ্যরাত থেকে শুরু হওয়া বৃষ্টি ও উজান থেকে পানি নেমে আসার ফলে খোয়াই নদীতে পানি বৃদ্ধি পেতে থাকে। এরই প্রেক্ষিতে গতকাল শুক্রবার সন্ধ্যার দিকে বিপদসীমার উপর দিয়ে পানি প্রবাহিত হয়। রাত সাড়ে ১১টার দিকে খোয়াই নদীর পানি বিপদসীমার ১১০ সেন্টিমিটার উপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে বলে জানায় পানি উন্নয়ন বোর্ড। খোয়াই নদীর পানি বৃদ্ধি পাওয়ায় শহরের লোকজনের মাঝে আবারো আতঙ্ক দেখা দিয়েছে। খোয়াই নদীর পানি বৃদ্ধির খবর শুনে নবাগত জেলা প্রশাসক মনীষ চাকমা, স্থানীয় সরকারের উপ-পরিচালক শফিউল আলম, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) এমরান হোসেন, সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা এটিএম আজহারুল ইসলাম, হবিগঞ্জ প্রেসক্লাব সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা গোলাম মোস্তফা রফিক, সাধারণ সম্পাদক চৌধুরী মোহাম্মদ ফরিয়াদ, দৈনিক জনকন্ঠের জেলা প্রতিনিধি রফিকুল হাসান চৌধুরী তুহিনসহ নেতৃবৃন্দ খোয়াই নদীর বাঁধ পরিদর্শনে যান। পরিদর্শন শেষে সার্কিট হাইজে এক জরুরি সভা জেলা প্রশাসক মনীষ চাকমার নেতৃত্বে অনুষ্ঠিত হয়। এসময় উপরে উল্লেখিত ব্যক্তিবর্গ ছাড়াও উপস্থিত ছিলেন, সাবেক পৌর চেয়ারম্যান ও আওয়ামীলীগ কেন্দ্রীয় পরিষদের সদস্য শহীদ উদ্দিন চৌধুরী ও কৃষি অধিদপ্তরের উপ পরিচালক মোঃ ফজলুর রহমান। সভায় জেলা প্রশাসক পানি উন্নয়ন বোর্ডের কর্মকর্তাদের উদ্যেশ্যে বলেন, বাঁধের যে সমস্ত স্থানে ভাঙ্গার সম্ভাবনা রয়েছে সে স্থানগুলোতে জরুরি ভিত্তিতে বালির বস্তা এবং লোকজন সার্বক্ষণিক রাখতে হবে। এ ব্যাপারে হবিগঞ্জ পানি উন্নয়ন বোর্ডের নির্বাহী প্রকৌশলী তাওহিদুল ইসলাম জানান, রাত ১১টা পর্যন্ত খোয়াই নদীর পানি বিপদসীমার ১১০ সেন্টিমিটার উপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে। তিনি বলেন ভারতের খোয়াই অংশে পানি কমতে থাকার কারনে আশাকরি শনিবার সকালের দিকে কমতে পারে।

মন্তব্য নেই

উত্তর