ইস্মিতার পাশে দাড়ালেন ব্যারিষ্টার শেখ ফজলে নাঈম

ভর্তি পরীক্ষার মেধাতালিকায় উত্তীর্ণ হয়েও টাকার অভাবে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে (বশেমুরবিপ্রবি) ‘তে ভর্তি হতে না পারা ইস্মিতার পাশে দাড়ালেন ব্যারিষ্টার শেখ ফজলে নাঈম ৷
 বিভিন্ন সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়লে তা ব্যারিষ্টার শেখ ফজলে নাঈম এর দৃষ্টিগোচর হয়। তখনই তিনি ইস্মিতা মন্ডলের সাথে যোগাযোগ করে এবং ইস্মিতার বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তির যাবতীয় খরচের দায়িত্ব নেয়।
আজ সন্ধ্যা ৭:০০ ঘটিকার সময়ে ইস্মিতা মন্ডলকে তার ভর্তির জন্য প্রয়োজনীয় টাকা তুলে দেয় ব্যারিষ্টার শেখ ফজলে নাঈম ৷ এসময় তিনি ইস্মিতার পড়ালেখার জন্য ভবিষ্যতে যত প্রকার সহায়তা লাগবে তিনি করবেন বলে আশ্বস্ত করেন ইস্মিতা ও তার বাবাকে ৷
উল্লেখ্য, ইস্মিতা মন্ডল ২০১৬ সালে হলদি বুনিয়া মাধ্যমিক বিদ্যালয় থেকে এসএসসিতে জিপিএ-৫ এবং মোংলা সরকারি কলেজ থেকে এইচএসসিতে এবছর জিপিএ ৪.৭৫ পায় । ২০১৮-১৯ শিক্ষাবর্ষের বশেমুরবিপ্রবি ভর্তি পরীক্ষায় ইস্মিতা মন্ডল ‘এফ’ ইউনিটে মেধাতালিকায় ২১৬ তম হয় ৷ কিন্তু অর্থের অভাবে ভর্তি হতে পারছিলেন না ইস্মিতা ৷ তার বাবা পেশায় খুচরা মাছ ব্যাবসায়ী। ৩ ভাই বোনের মধ্যে ইস্মিতা বড় মেয়ে বাকি একজন প্রতিবন্ধী এবং এক ভাই অষ্টম শ্রেণীতে পড়াশোনা করে।