চেন্নাই নয়, হায়দরাবাদে হবে আইপিএল ফাইনাল

চলতি আইপিলের ফাইনালের ভেন্যুতে পরিবর্তন আনা হয়েছে। আইপিএলের গর্ভনিং বডির সিদ্ধান্ত অনুযায়ী চেন্নাইয়ের চিপকের পরিবর্তে এবারের ফাইনাল হবে হায়দরাবাদের রাজীব গান্ধী আন্তর্জাতিক স্টেডিয়ামে।

১২ মে অনুষ্ঠিত হবে আইপিএলের দ্বাদশ আসরের ফাইনাল।

তবে প্রথম কোয়ালিফায়ারের ম্যাচটি হবে চেন্নাইয়ে। আর এলিমিনেটর ও দ্বিতীয় কোয়ালিফায়ার হবে ভাইজ্যাগে।

তামিলনাড়ু ক্রিকেট অ্যাসোসিয়েশন (টিএনসি) চিপক স্টেডিয়ামের তিনটি স্ট্যান্ডস (I,J,K) খোলার অনুমতি না-পাওয়ায় চেন্নাই থেকে আইপিএল ফাইনাল সরিয়ে নেওয়ার সিদ্ধান্ত নিল বিসিসিআই।

সোমবার বোর্ডের কমিটি অফ অ্যাডমিনিস্ট্রেটরের প্রধান বিনোদ রাই পিটিআইকে জানান, চিপক স্টেডিয়ামের তিনটি স্ট্যান্ডস খোলার অনুমতি না-পাওয়ায় কথা টিএনসিএ আমাদের জানানোর পর চেন্নাই থেকে হায়দরাবাদে আইপিএল ফাইনাল সরাতে বাধ্য হলাম।

আইপিএল ফাইনাল সরলেও ৭ মে প্রথম কোয়ালিফায়ার হবে চিপকেই। নিয়মানুসারে আইপিএলের প্লে-অফ ম্যাচগুলো হয় গত আসরের চ্যাম্পিয়ন ও রানার্স দলের হোম গ্রাউন্ডে। নিয়মানুসারে চিপকেই ফাইনাল ও প্রথম কোয়ালিফায়ার হওয়ার কথা ছিল গতবারের চ্যাম্পিয়ন চেন্নাই সুপার কিংসের হোম গ্রাউন্ড চিপকে। কিন্তু তামিলনাড়ু ক্রিকেট অ্যাসোসিয়েশনের সঙ্গে মিউনিসিপালিটির দ্বন্দ্বে এবারও তিনটি স্ট্যান্ডস খোলার অনুমতি পাওয়া যায়নি।

ফলে ফাইনাল ম্যাচ চিপকে থেকে সরিয়ে হায়দরাবাদে নিয়ে যাওয়ার সিদ্ধান্ত হলো। তবে প্রথম কোয়ালিফায়ার ম্যাচটি চিপকেই হবে।

এছাড়া ৬, ১০ ও ১৪ মে লোকসভা নির্বাচনের জন্য হায়দরাবাদেও এলিমিনেটর ও কোয়ালিফায়ার ম্যাচের জন্য পর্যাপ্ত নিরাপত্তা দিতে না পারার কথা পুলিশের তরফে জানিয়ে দেওয়া হয়।

এ কথা মাথায় রেখে ৮ মে এলিমিনেটর ও ১০ মে দ্বিতীয় কোয়ালিফায়ার হায়দরাবাদ থেকে সরিয়ে ভাইজ্যাগে নিয়ে যাওয়া হয়।