সন্ত্রাসবাদীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে পাকিস্তানকে সতর্কবার্তা

সন্ত্রাসবাদীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে পাকিস্তানকে কড়া সতর্কবার্তা দিয়েছে আন্তর্জাতিক সংস্থা- ফিন্যান্সিয়াল অ্যাকশন টাস্ক ফোর্স (এফএটিএফ)।

নাহলে পাকিস্তানকে ‘কালো তালিকায়’ ফেলে দেওয়া হবে বলেও হুঁশিয়ারি দিয়েছে অর্থপাচার রোধে গঠিত সংস্থাটি।

এনডিটিভির খবরে বলা হয়, সন্ত্রাসে অর্থ জোগানো এবং অর্থপাচারের ক্ষেত্রে অপর্যাপ্ত নিয়ন্ত্রণের জন্য পাকিস্তানকে ‘ধূসর তালিকায়’ রেখেছে এফএটিএফ। পাকিস্তান যদি এফএটিএফ ঘোষিত ‘কালো তালিকায়’ চলে যায়, তাহলে তারা বিশ্বব্যাপী চরম চাপে পড়ে যাবে এবং আন্তর্জাতিক নিষেধাজ্ঞার তালিকায় চলে যাবে।

এক বিবৃতিতে এফএটিএফ জানায়, ‘সন্ত্রাসবাদীদের বিরুদ্ধে ২০১৯ সালের অক্টোবর মধ্যে সকল অ্যাকশন প্ল্যান শেষ করার জন্য পাকিস্তানকে বলা হচ্ছে, শেষ অ্যাকশন প্ল্যান প্রায় শেষ হতে চলেছে। নাহলে উপযুক্ত অগ্রগতি না হওয়ায় পরের পদক্ষেপ ঠিক করবে এফএটিএফ।’

হাফিজ সইদ, মাসুদ আজাহারের মতো রাষ্ট্রসংঘ ঘোষিত জঙ্গিদের বিরুদ্ধে কড়া পদক্ষেপ নিতে পাকিস্তানের ব্যর্থতা নিয়ে সরব হয়েছে ভারতসহ অন্যান্য দেশসমূহ।

এফএটিএফের অনেক সদস্য জানান, রাষ্ট্রসংঘ ঘোষিত জঙ্গি, পাকিস্তানের নাগরিক হাফিজ সইদ, মাসুদ আজাহারের বিরুদ্ধে কোনো মামলা দায়ের করা হয়নি।

তবে পাকিস্তান দাবি করেছে, লস্কর-ই-তৈয়বা, জামাত-উদ-দাওয়া, ফাল্লাহ-ই-ইনসানিয়ৎ ফাইন্ডেশন, জইশ-ই-মহম্মদের প্রায় ৭০০ সম্পত্তি বাজেয়াপ্ত করা হয়েছে।